নিউইয়র্ক ১২:০৮ অপরাহ্ন, রবিবার, ২৬ মে ২০২৪, ১২ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
বিজ্ঞাপন :
মঙ্গলবারের পত্রিকা সাপ্তাহিক হককথা ও হককথা.কম এ আপনার প্রতিষ্ঠানের বিজ্ঞাপন দিতে যোগাযোগ করুন +1 (347) 848-3834

ভাষা সৈনিক ও সাংবাদিক অধ্যাপক আবদুল গফুরের জন্মদিন ১৯ ফেব্রুয়ারী

রিপোর্ট:
  • প্রকাশের সময় : ০৪:০৩:৫৬ অপরাহ্ন, বুধবার, ১৮ ফেব্রুয়ারী ২০১৫
  • / ১৪৮৮ বার পঠিত

ঢাকা: প্রখ্যাত ভাষা সৈনিক, প্রবীণ সাংবাদিক অধ্যাপক আবদুল গফুরের ৮৬তম জন্মদিন ১৯ ফেব্রুয়ারী। সুদীর্ঘ বর্ণাঢ্য জীবনের অধিকারী প্রবীণ ভাষা সৈনিক, সাংবাদিক, প্রাবন্ধিক, সংস্কৃতি সংগঠক, সাবেক কলেজ শিক্ষক ও বর্তমানে দৈনিক ইনকিলাব-এর ফিচার সম্পাদক অধ্যাপক আবদুল গফুর ১৯২৯ সালের এই দিনে রাজবাড়ী জেলার দাদপুর গ্রামে জন্মগ্রহণ করেন। তাঁর শিক্ষা জীবনের শুরু পিতার প্রতিষ্ঠিত গ্রামের মক্তবে।
তিনি পঞ্চাশের দশকে ও পরবর্তীতে পাক্ষিক জিন্দেগী পত্রিকা, সাপ্তাহিক সৈনিক, দৈনিক মিল্লাত, দৈনিক নাজাত, দৈনিক আজাদ, দ্য ডেইলি পিপল প্রভৃতি পত্রিকার সম্পাদক, সহকারী সম্পাদক ও সহ-সম্পাদকের দায়িত্ব পালন করেন। আধ্যাপক আবদুল গফুর তমদ্দুন মজলিসের অন্যতম প্রতিষ্ঠাতা সহযোগী ও ভাষা আন্দোলনের প্রত্যক্ষ সৈনিক। তিনি বহু সামাজিক সাংস্কৃতিক সংগঠন ছাড়াও ভাষা আন্দোলনের স্থপতি সংগঠন তমদ্দুন মজলিসের অভিভাবক পরিষদের সভাপতির দায়িত্ব পালন করছেন। তিনি একুশে পদকসহ অসংখ্য জাতীয় ও আন্তর্জাতিক পদক লাভ করেছেন। (দৈনিক ইনকিলাব)

Tag :

সোশ্যাল মিডিয়ায় খবরটি শেয়ার করুন

আপনার মন্তব্য লিখুন

About Author Information

ভাষা সৈনিক ও সাংবাদিক অধ্যাপক আবদুল গফুরের জন্মদিন ১৯ ফেব্রুয়ারী

প্রকাশের সময় : ০৪:০৩:৫৬ অপরাহ্ন, বুধবার, ১৮ ফেব্রুয়ারী ২০১৫

ঢাকা: প্রখ্যাত ভাষা সৈনিক, প্রবীণ সাংবাদিক অধ্যাপক আবদুল গফুরের ৮৬তম জন্মদিন ১৯ ফেব্রুয়ারী। সুদীর্ঘ বর্ণাঢ্য জীবনের অধিকারী প্রবীণ ভাষা সৈনিক, সাংবাদিক, প্রাবন্ধিক, সংস্কৃতি সংগঠক, সাবেক কলেজ শিক্ষক ও বর্তমানে দৈনিক ইনকিলাব-এর ফিচার সম্পাদক অধ্যাপক আবদুল গফুর ১৯২৯ সালের এই দিনে রাজবাড়ী জেলার দাদপুর গ্রামে জন্মগ্রহণ করেন। তাঁর শিক্ষা জীবনের শুরু পিতার প্রতিষ্ঠিত গ্রামের মক্তবে।
তিনি পঞ্চাশের দশকে ও পরবর্তীতে পাক্ষিক জিন্দেগী পত্রিকা, সাপ্তাহিক সৈনিক, দৈনিক মিল্লাত, দৈনিক নাজাত, দৈনিক আজাদ, দ্য ডেইলি পিপল প্রভৃতি পত্রিকার সম্পাদক, সহকারী সম্পাদক ও সহ-সম্পাদকের দায়িত্ব পালন করেন। আধ্যাপক আবদুল গফুর তমদ্দুন মজলিসের অন্যতম প্রতিষ্ঠাতা সহযোগী ও ভাষা আন্দোলনের প্রত্যক্ষ সৈনিক। তিনি বহু সামাজিক সাংস্কৃতিক সংগঠন ছাড়াও ভাষা আন্দোলনের স্থপতি সংগঠন তমদ্দুন মজলিসের অভিভাবক পরিষদের সভাপতির দায়িত্ব পালন করছেন। তিনি একুশে পদকসহ অসংখ্য জাতীয় ও আন্তর্জাতিক পদক লাভ করেছেন। (দৈনিক ইনকিলাব)