নিউইয়র্ক ১১:৪৫ পূর্বাহ্ন, রবিবার, ২৬ মে ২০২৪, ১২ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
বিজ্ঞাপন :
মঙ্গলবারের পত্রিকা সাপ্তাহিক হককথা ও হককথা.কম এ আপনার প্রতিষ্ঠানের বিজ্ঞাপন দিতে যোগাযোগ করুন +1 (347) 848-3834

ব্রুকলিনে দূর্ঘটনা : আড়াই মিলিয়ন ডলার ক্ষতিপূরণ পাচ্ছেন বাংলাদেশী মোশাররফ

রিপোর্ট:
  • প্রকাশের সময় : ০৫:৪২:১৩ অপরাহ্ন, সোমবার, ৪ এপ্রিল ২০১৬
  • / ৭৫৮ বার পঠিত

নিউইয়র্ক: বাংলাদেশের একজন নিহত শ্রমিকের পক্ষে প্রায় ২ মিলিয়ন ডলার, সুদে আসলে প্রায় আড়াই মিলিয়ন ডলার ক্ষতিপূরনের রায় দিয়েছে নিউইয়র্কের আদালত। ২০০৮ সালে মোশাররফ হোসেন নামের ওই ব্যাক্তি ব্রুকলিনের একটি বাড়ীতে কাজ করার সময় দূর্ঘটনায় মারা যান। পেরি ডি সিলভার নামের এক আইনজীবি সেই থেকে এই কেসে’র আইনী লড়াই অব্যহত রাখেন, অবশেষে গত শুক্রবার নিহতের পক্ষে এ রায় পান। ব্রুকলিনের সেন্ট মার্কস এভিনিউ এর সেভেন এই ট্টিনাইন, ভবনে হয় দূর্ঘটনা। ২০০৮ সালের জুন মাসের ঘটনা। সেখানে পাওয়ার ওয়াস কাজে ব্যস্থ থাকার সময় ৪ তলা থেকে দূর্ঘটনার সিড়ি ভেঙে পড়ে মোশাররফ হোসেনের উপর। হাসপাতালে নেয়ার ২০ মিনিটের মধ্যে মারা যান মোশাররফ। আইনজীবি পেরি সিলভার এই মামলায় রায় মোশাররফ হোসেন এর পরিবারের পক্ষে নিয়ে এসেছেন দীর্ঘ আইনী লড়াই করে।
Pery De Silver Picআইনজীবি পেরি সিলভার বলেন, আমি নিরলসভাবে চেষ্টা করেছি যাতে করে ক্ষতিগ্রস্ত ব্যক্তি বা তার পরিবার ক্ষতিপূরণ পান, এতে আমার প্রত্যাশা পূরণ হয়েছে। তবে ওই ভবনের যে ইনস্যুরেন্স কোম্পানী, তারা আদালতের এ ক্ষতিপূরন সম্বলিত রায়ের বিরুদ্ধে আপীল করবেন বলে সিদ্ধান্ত নিয়েছে। কিন্তু পেরি সিলভার বলছেন, অর্থ প্রদানে যত দেরী করবে প্রতিষ্টানটি,ততই ক্ষতিপূরনের অর্থের পরিমান বাড়বে। আমি আশা করছি আমার ক্লায়েন্টই লাভবান হবেন।
নোয়াখালির কোম্পানীগঞ্জের মোশাররফ হোসেন এর স্ত্রী এবং পুত্র এখন বাংলাদেশে বসবাস করছেন। এই আইনী লড়াইয়ে হাজির হতে যুক্তরাষ্ট্রে আসার চেষ্টা করেও ভিসা জটিলতায় তারা এখানে আসতে পারেন নি। তবে আইনি লড়ায়ে জেতার পর তারা বেশ খুশি বলে জানিয়েছেন পেরি ডি সিলভার। এদিকে এ খবরে নোয়াখালী প্রবাসীদের মধ্যে আনন্দের বন্যা বয়ে যাচ্ছে।
এবিষয়ে নিজের প্রতিক্রিয়া ব্যক্ত করে নোয়াখালী সমিতির সাবেক সভাপতি আলহাজ মফিজুর রহমান বলেন, রায়টি শুনে আমরা স্বস্তি প্রকাশ করছি। এর মাধ্যমে ক্ষতিগ্রস্তরা ন্যায় বিচার পেলেন। এটাই এখন শান্তনা। (সাপ্তাহিক বাংলা পত্রিকা)

সোশ্যাল মিডিয়ায় খবরটি শেয়ার করুন

আপনার মন্তব্য লিখুন

About Author Information

ব্রুকলিনে দূর্ঘটনা : আড়াই মিলিয়ন ডলার ক্ষতিপূরণ পাচ্ছেন বাংলাদেশী মোশাররফ

প্রকাশের সময় : ০৫:৪২:১৩ অপরাহ্ন, সোমবার, ৪ এপ্রিল ২০১৬

নিউইয়র্ক: বাংলাদেশের একজন নিহত শ্রমিকের পক্ষে প্রায় ২ মিলিয়ন ডলার, সুদে আসলে প্রায় আড়াই মিলিয়ন ডলার ক্ষতিপূরনের রায় দিয়েছে নিউইয়র্কের আদালত। ২০০৮ সালে মোশাররফ হোসেন নামের ওই ব্যাক্তি ব্রুকলিনের একটি বাড়ীতে কাজ করার সময় দূর্ঘটনায় মারা যান। পেরি ডি সিলভার নামের এক আইনজীবি সেই থেকে এই কেসে’র আইনী লড়াই অব্যহত রাখেন, অবশেষে গত শুক্রবার নিহতের পক্ষে এ রায় পান। ব্রুকলিনের সেন্ট মার্কস এভিনিউ এর সেভেন এই ট্টিনাইন, ভবনে হয় দূর্ঘটনা। ২০০৮ সালের জুন মাসের ঘটনা। সেখানে পাওয়ার ওয়াস কাজে ব্যস্থ থাকার সময় ৪ তলা থেকে দূর্ঘটনার সিড়ি ভেঙে পড়ে মোশাররফ হোসেনের উপর। হাসপাতালে নেয়ার ২০ মিনিটের মধ্যে মারা যান মোশাররফ। আইনজীবি পেরি সিলভার এই মামলায় রায় মোশাররফ হোসেন এর পরিবারের পক্ষে নিয়ে এসেছেন দীর্ঘ আইনী লড়াই করে।
Pery De Silver Picআইনজীবি পেরি সিলভার বলেন, আমি নিরলসভাবে চেষ্টা করেছি যাতে করে ক্ষতিগ্রস্ত ব্যক্তি বা তার পরিবার ক্ষতিপূরণ পান, এতে আমার প্রত্যাশা পূরণ হয়েছে। তবে ওই ভবনের যে ইনস্যুরেন্স কোম্পানী, তারা আদালতের এ ক্ষতিপূরন সম্বলিত রায়ের বিরুদ্ধে আপীল করবেন বলে সিদ্ধান্ত নিয়েছে। কিন্তু পেরি সিলভার বলছেন, অর্থ প্রদানে যত দেরী করবে প্রতিষ্টানটি,ততই ক্ষতিপূরনের অর্থের পরিমান বাড়বে। আমি আশা করছি আমার ক্লায়েন্টই লাভবান হবেন।
নোয়াখালির কোম্পানীগঞ্জের মোশাররফ হোসেন এর স্ত্রী এবং পুত্র এখন বাংলাদেশে বসবাস করছেন। এই আইনী লড়াইয়ে হাজির হতে যুক্তরাষ্ট্রে আসার চেষ্টা করেও ভিসা জটিলতায় তারা এখানে আসতে পারেন নি। তবে আইনি লড়ায়ে জেতার পর তারা বেশ খুশি বলে জানিয়েছেন পেরি ডি সিলভার। এদিকে এ খবরে নোয়াখালী প্রবাসীদের মধ্যে আনন্দের বন্যা বয়ে যাচ্ছে।
এবিষয়ে নিজের প্রতিক্রিয়া ব্যক্ত করে নোয়াখালী সমিতির সাবেক সভাপতি আলহাজ মফিজুর রহমান বলেন, রায়টি শুনে আমরা স্বস্তি প্রকাশ করছি। এর মাধ্যমে ক্ষতিগ্রস্তরা ন্যায় বিচার পেলেন। এটাই এখন শান্তনা। (সাপ্তাহিক বাংলা পত্রিকা)