নিউইয়র্ক ০৪:১২ পূর্বাহ্ন, রবিবার, ১৪ জুলাই ২০২৪, ২৯ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
বিজ্ঞাপন :
মঙ্গলবারের পত্রিকা সাপ্তাহিক হককথা ও হককথা.কম এ আপনার প্রতিষ্ঠানের বিজ্ঞাপন দিতে যোগাযোগ করুন +1 (347) 848-3834

আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতি সরকারের সম্পূর্ণ নিয়ন্ত্রণে: নিউইয়র্কে আইজিপি

রিপোর্ট:
  • প্রকাশের সময় : ০৫:৪০:১৫ অপরাহ্ন, বুধবার, ৩ জুন ২০১৫
  • / ৫৫৭ বার পঠিত

নিউইয়র্ক: বাংলাদেশের আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতি সরকারের সম্পূর্ণ নিয়ন্ত্রণে রয়েছে এবং পুলিশ অতীতের যে কোনো সময়ের তুলনায় নিরপেক্ষভাবে কাজ করছে বলে মন্তব্য করেছেন যুক্তরাষ্ট্র সফররত পুলিশের মহাপরিদর্শক (আইজিপি) এ কে এম শহীদুল হক। তিনি বলেন, বাংলাদেশের পুলিশ ধীরে ধীরে জনগণের আস্থাভাজন প্রতিষ্ঠানে পরিণত হচ্ছে। পুলিশের সঙ্গে নাগরিকদের সম্পর্কের উন্নয়ন ঘটেছে বলেও দাবি করেন আইজিপি।
স্থানীয় সময় রবিবার (৩১ মে) বিকালে নিউইয়র্কের জ্যামাইকায় প্রবাসী বাংলাদেশীদের দেয়া এক মতবিনিময় সভায় এ মন্তব্য করেন আইজিপি শহীদুল হক। মতবিনিময় সভায় এ কে এম শহীদুল হক বলেন, হরতাল-অবরোধের নামে জনজীবনকে জিম্মি করা, পেট্রোল বোমা হামলাসহ নানান নাশকতামূলক কর্মকান্ডের প্রতি মানুষের সমর্থন ছিল না বলেই বাংলাদেশে শান্তি প্রতিষ্ঠিত হয়েছে।
তিনি বলেন, রাজনৈতিক কর্মসূচির আড়ালে জঙ্গিদের উত্থানের গভীর ষড়যন্ত্র হয়েছিল। সাধারণ মানুষের প্রতিরোধের কারণে পুলিশের পক্ষে জঙ্গি দমন করা খুব সহজ হয়েছে। তবে জনসমর্থন আরও জোরদার হলে পুলিশের অভিযানেই জঙ্গিদের নিশ্চিহ্ন করা যাবে বলে মন্তব্য করেন পুলিশ প্রধান।
আইজিপি আরও বলেন, পুলিশ সাধ্যমত জননিরাপত্তা নিশ্চিত করার চেষ্টা করছে। এজন্য পুলিশের প্রতিটি সদস্য প্রতিদিন গড়ে ১৮ ঘণ্টা করে কাজ করছেন।
আইজিপি এ কে এম শহীদুল হক অভিযোগ করেন, একটি মহল বিদেশে বাংলাদেশের ভাবমূর্তি ক্ষুন্ন করছে। তারা এ কাজে বিপুল অর্থ ব্যয়ে লবিস্ট নিয়োগ করেছে। তিনি বলেন, বাংলাদেশে মানবাধিকার নেই বলে বিদেশে মিথ্যাচার করা হচ্ছে।
জ্যামাইকার হিলসাইড অ্যাভিনিউর তাজমহল পার্টি হলে আয়োজিত মতবিনিময় সভায় সভাপতিত্ব করেন বিশিষ্ট ব্যবসায়ী সাঈদ রহমান মান্নান। সভার সঞ্চালক ছিলেন কমিউনিটি অ্যাক্টিভিস্ট ও রাজনীতিক জাকারিয়া চৌধুরী। সভায় সাধারণ প্রবাসী ছাড়াও যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী লীগের বিভিন্ন অঙ্গ সংগঠনের নেতা-কর্মীরা অংশ নেন। মতবিনিময় সভায় সাধারণ প্রবাসীরা দেশে তাদের সম্পদের নিরাপত্তাসহ দেশে ভ্রমণের নিরাপত্তা নিশ্চিত করার জন্য আইজিপির দৃষ্টি আকর্ষণ করেন। এসময় আইজিপি প্রবাসীদের নিরাপত্তাসহ যে কোনো সমস্যার ব্যাপারে সরাসরি পুলিশ সদর দপ্তরে তার সঙ্গে যোগাযোগের পরামর্শ দেন।

সোশ্যাল মিডিয়ায় খবরটি শেয়ার করুন

আপনার মন্তব্য লিখুন

About Author Information

আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতি সরকারের সম্পূর্ণ নিয়ন্ত্রণে: নিউইয়র্কে আইজিপি

প্রকাশের সময় : ০৫:৪০:১৫ অপরাহ্ন, বুধবার, ৩ জুন ২০১৫

নিউইয়র্ক: বাংলাদেশের আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতি সরকারের সম্পূর্ণ নিয়ন্ত্রণে রয়েছে এবং পুলিশ অতীতের যে কোনো সময়ের তুলনায় নিরপেক্ষভাবে কাজ করছে বলে মন্তব্য করেছেন যুক্তরাষ্ট্র সফররত পুলিশের মহাপরিদর্শক (আইজিপি) এ কে এম শহীদুল হক। তিনি বলেন, বাংলাদেশের পুলিশ ধীরে ধীরে জনগণের আস্থাভাজন প্রতিষ্ঠানে পরিণত হচ্ছে। পুলিশের সঙ্গে নাগরিকদের সম্পর্কের উন্নয়ন ঘটেছে বলেও দাবি করেন আইজিপি।
স্থানীয় সময় রবিবার (৩১ মে) বিকালে নিউইয়র্কের জ্যামাইকায় প্রবাসী বাংলাদেশীদের দেয়া এক মতবিনিময় সভায় এ মন্তব্য করেন আইজিপি শহীদুল হক। মতবিনিময় সভায় এ কে এম শহীদুল হক বলেন, হরতাল-অবরোধের নামে জনজীবনকে জিম্মি করা, পেট্রোল বোমা হামলাসহ নানান নাশকতামূলক কর্মকান্ডের প্রতি মানুষের সমর্থন ছিল না বলেই বাংলাদেশে শান্তি প্রতিষ্ঠিত হয়েছে।
তিনি বলেন, রাজনৈতিক কর্মসূচির আড়ালে জঙ্গিদের উত্থানের গভীর ষড়যন্ত্র হয়েছিল। সাধারণ মানুষের প্রতিরোধের কারণে পুলিশের পক্ষে জঙ্গি দমন করা খুব সহজ হয়েছে। তবে জনসমর্থন আরও জোরদার হলে পুলিশের অভিযানেই জঙ্গিদের নিশ্চিহ্ন করা যাবে বলে মন্তব্য করেন পুলিশ প্রধান।
আইজিপি আরও বলেন, পুলিশ সাধ্যমত জননিরাপত্তা নিশ্চিত করার চেষ্টা করছে। এজন্য পুলিশের প্রতিটি সদস্য প্রতিদিন গড়ে ১৮ ঘণ্টা করে কাজ করছেন।
আইজিপি এ কে এম শহীদুল হক অভিযোগ করেন, একটি মহল বিদেশে বাংলাদেশের ভাবমূর্তি ক্ষুন্ন করছে। তারা এ কাজে বিপুল অর্থ ব্যয়ে লবিস্ট নিয়োগ করেছে। তিনি বলেন, বাংলাদেশে মানবাধিকার নেই বলে বিদেশে মিথ্যাচার করা হচ্ছে।
জ্যামাইকার হিলসাইড অ্যাভিনিউর তাজমহল পার্টি হলে আয়োজিত মতবিনিময় সভায় সভাপতিত্ব করেন বিশিষ্ট ব্যবসায়ী সাঈদ রহমান মান্নান। সভার সঞ্চালক ছিলেন কমিউনিটি অ্যাক্টিভিস্ট ও রাজনীতিক জাকারিয়া চৌধুরী। সভায় সাধারণ প্রবাসী ছাড়াও যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী লীগের বিভিন্ন অঙ্গ সংগঠনের নেতা-কর্মীরা অংশ নেন। মতবিনিময় সভায় সাধারণ প্রবাসীরা দেশে তাদের সম্পদের নিরাপত্তাসহ দেশে ভ্রমণের নিরাপত্তা নিশ্চিত করার জন্য আইজিপির দৃষ্টি আকর্ষণ করেন। এসময় আইজিপি প্রবাসীদের নিরাপত্তাসহ যে কোনো সমস্যার ব্যাপারে সরাসরি পুলিশ সদর দপ্তরে তার সঙ্গে যোগাযোগের পরামর্শ দেন।