নিউইয়র্ক ১২:০২ অপরাহ্ন, রবিবার, ২৬ মে ২০২৪, ১২ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
বিজ্ঞাপন :
মঙ্গলবারের পত্রিকা সাপ্তাহিক হককথা ও হককথা.কম এ আপনার প্রতিষ্ঠানের বিজ্ঞাপন দিতে যোগাযোগ করুন +1 (347) 848-3834

মোটরসাইকেলে চালক ছাড়া অন্য আরোহী নিষিদ্ধ

রিপোর্ট:
  • প্রকাশের সময় : ০৪:২০:৪৭ পূর্বাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ২২ জানুয়ারী ২০১৫
  • / ১০৫১ বার পঠিত
ঢাকা: মোটরসাইকেলে চালক ছাড়া আরোহী বহনের উপর নিষেধাজ্ঞা জারি করেছে সরকার। আজ বৃহস্পতিবার বাংলাদেশ সড়ক পরিবহন ও মহাসড়ক বিভাগের এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ কথা জানানো হয়। অর্থাৎ, এখন থেকে পরবর্তী নির্দেশ না দেওয়া পর্যন্ত একাধিক ব্যক্তি মোটর সাইকেলে চড়তে পারবেন না। এতে বলা হয়, সম্প্রতিকালে কিছু দুর্বৃত্ত মোটরসাইকেল ব্যবহার করে বিভিন্ন যানবাহনে বোমা হামলাসহ ব্যাপক সহিংসতা ও নাশকতা চালাচ্ছে। এ ধরনের নাশকতা ও সহিংসতা রোধে এবং জননিরাপত্তা নিশ্চিত করতে ১৯৮৩ সালের মোটর ভেহিকেলস অধ্যাদেশ এর ৮৮ ধারার ক্ষমতাবলে পুনরাদেশ না দেওয়া পর্যন্ত সরকার সারা দেশে মোটর সাইকেলে চালক ব্যতিত অন্য কোনো যাত্রী বা সঙ্গী বহন নিষিদ্ধ করল।ঢাকা মহানগর ট্রাফিক পুলিশের উপ কমিশনার (দক্ষিণ) খান মোহাম্মদ রেজোয়ান অবশ্য জানালেন, পুলিশ অধ্যাদেশের মাধ্যমে তারা গত দুদিন ধরেই মোটরসাইকেলে একজনের বেশি চড়াকে নিরুৎসাহিত করছেন। তিনি বলেন, সম্প্রতি পুলিশের অনুসন্ধানে দেখা গেছে, মোটর সাইকেল থেকে গাড়িতে পেট্রল বোমা ও হাতবোমা নিক্ষেপের ঘটনা ঘটছে। এটা বন্ধ করতে জনস্বার্থে পুলিশ এই সিদ্ধান্ত নিয়েছে।

এই নিষেধাজ্ঞা কীভাবে কার্যকর করা হচ্ছে জানতে চাইলে তিনি বলেন, প্রাথমিকভাবে মোটরসাইকেলে দুইজন থাকলে একজনকে নামিয়ে দেওয়া হচ্ছে। তাছাড়া আরোহীদের কাছে পেট্রল বোমা বা বিস্ফোরক থাকলে তো ফৌজদারী মামলা হবেই। নিয়ম অনুযায়ী হেলমেট ছাড়া বাইক চালালেও জরিমানা করা হবে বলে জানান তিনি। এর আগে নাশকতাকারীদের গোপন যোগাযোগ বন্ধ করতে ভাইবার, হোয়াটস অ্যাপসহ পাঁচটি জনপ্রিয় ইন্টারনেটভিত্তিক অ্যাপ তিন দিন বন্ধ রাখার পর খুলে দেওয়া হলেও এবার মোটর সাইকেলে চড়া নিয়ে এই নিষেধাজ্ঞা এল।

Tag :

সোশ্যাল মিডিয়ায় খবরটি শেয়ার করুন

আপনার মন্তব্য লিখুন

About Author Information

মোটরসাইকেলে চালক ছাড়া অন্য আরোহী নিষিদ্ধ

প্রকাশের সময় : ০৪:২০:৪৭ পূর্বাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ২২ জানুয়ারী ২০১৫
ঢাকা: মোটরসাইকেলে চালক ছাড়া আরোহী বহনের উপর নিষেধাজ্ঞা জারি করেছে সরকার। আজ বৃহস্পতিবার বাংলাদেশ সড়ক পরিবহন ও মহাসড়ক বিভাগের এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ কথা জানানো হয়। অর্থাৎ, এখন থেকে পরবর্তী নির্দেশ না দেওয়া পর্যন্ত একাধিক ব্যক্তি মোটর সাইকেলে চড়তে পারবেন না। এতে বলা হয়, সম্প্রতিকালে কিছু দুর্বৃত্ত মোটরসাইকেল ব্যবহার করে বিভিন্ন যানবাহনে বোমা হামলাসহ ব্যাপক সহিংসতা ও নাশকতা চালাচ্ছে। এ ধরনের নাশকতা ও সহিংসতা রোধে এবং জননিরাপত্তা নিশ্চিত করতে ১৯৮৩ সালের মোটর ভেহিকেলস অধ্যাদেশ এর ৮৮ ধারার ক্ষমতাবলে পুনরাদেশ না দেওয়া পর্যন্ত সরকার সারা দেশে মোটর সাইকেলে চালক ব্যতিত অন্য কোনো যাত্রী বা সঙ্গী বহন নিষিদ্ধ করল।ঢাকা মহানগর ট্রাফিক পুলিশের উপ কমিশনার (দক্ষিণ) খান মোহাম্মদ রেজোয়ান অবশ্য জানালেন, পুলিশ অধ্যাদেশের মাধ্যমে তারা গত দুদিন ধরেই মোটরসাইকেলে একজনের বেশি চড়াকে নিরুৎসাহিত করছেন। তিনি বলেন, সম্প্রতি পুলিশের অনুসন্ধানে দেখা গেছে, মোটর সাইকেল থেকে গাড়িতে পেট্রল বোমা ও হাতবোমা নিক্ষেপের ঘটনা ঘটছে। এটা বন্ধ করতে জনস্বার্থে পুলিশ এই সিদ্ধান্ত নিয়েছে।

এই নিষেধাজ্ঞা কীভাবে কার্যকর করা হচ্ছে জানতে চাইলে তিনি বলেন, প্রাথমিকভাবে মোটরসাইকেলে দুইজন থাকলে একজনকে নামিয়ে দেওয়া হচ্ছে। তাছাড়া আরোহীদের কাছে পেট্রল বোমা বা বিস্ফোরক থাকলে তো ফৌজদারী মামলা হবেই। নিয়ম অনুযায়ী হেলমেট ছাড়া বাইক চালালেও জরিমানা করা হবে বলে জানান তিনি। এর আগে নাশকতাকারীদের গোপন যোগাযোগ বন্ধ করতে ভাইবার, হোয়াটস অ্যাপসহ পাঁচটি জনপ্রিয় ইন্টারনেটভিত্তিক অ্যাপ তিন দিন বন্ধ রাখার পর খুলে দেওয়া হলেও এবার মোটর সাইকেলে চড়া নিয়ে এই নিষেধাজ্ঞা এল।