নিউইয়র্ক ০৩:৫২ অপরাহ্ন, সোমবার, ২২ জুলাই ২০২৪, ৭ শ্রাবণ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
বিজ্ঞাপন :
মঙ্গলবারের পত্রিকা সাপ্তাহিক হককথা ও হককথা.কম এ আপনার প্রতিষ্ঠানের বিজ্ঞাপন দিতে যোগাযোগ করুন +1 (347) 848-3834

জ্যামাইকা বাংলাদেশ ফ্রেন্ডস সোসাইটির সাধারণ সভায় ভবন প্রতিষ্ঠার সিদ্ধান্ত

রিপোর্ট:
  • প্রকাশের সময় : ০১:১৪:৫৮ পূর্বাহ্ন, মঙ্গলবার, ২৯ ডিসেম্বর ২০১৫
  • / ৯২০ বার পঠিত

নিউইয়র্ক: যুক্তরাষ্ট্রে প্রবাসী বাংলাদেশীদের সুপরিচিত ও জনপ্রিয় সামাজিক সংগঠন জ্যামাইকা বাংলাদেশ ফ্রেন্ডস সোসাইটির দ্বি-বার্ষিক সাধারণ সভায় আগামী দুই বছরের (২০১৬-২০১৭) জন্য নতুন কমিটির সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদক নির্বাচিত করা হয়েছে। এই কমিটির সভাপতি নির্বাচিত হয়েছেন কমিউনিটির পরিচিত মুখ ও বিশিষ্ট রিয়ের এস্টেট ব্যবসায়ী মোহাম্মদ সাইফুল ইসলাম এবং সাধারণ সম্পাদক নির্বাচিত হয়েছেন কমিউনিটির অপর পরিচিত অ্যাক্টিভিস্ট রেজাউল আজাদ ভুইয়া। সাইফুল ইসলাম বিদায়ী কমিটির সিনিয়র সহ সভাপতি আর রেজাউল একই কমিটির যুগ্ম সাধারণ সম্পাদকের দায়িত্ব পালন করছিলেন। সভার সিদ্ধান্ত মোতাবেক সম্ভাব্য স্বল্প সময়ের মধ্যে উপদেষ্টা পরিষদ, নব নির্বাচিত সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদক আর বিদায়ী কমিটির শীর্ষ কর্মকর্তাদের যৌথ সভায় ফ্রেন্ডস সোসাইটির পূর্ণাঙ্গ কমিটি গঠন করা হবে। এছাড়া সভায় সংগঠনের আজীবন সদস্য সংগ্রহ অভিযান শুরু ও সোসাইটির অফিস/ভবন প্রতিষ্ঠার সিদ্ধান্ত নেয়া হয়।
এদিকে ফ্রেন্ডস সোসাইটির সভায় সংগঠনের ইতিহাসে চলতি বছর দেড় লাখ ডলার ব্যয়ে সফল অনুষ্ঠান আয়োজন এবং সোসাইটির ঐতিহ্য অক্ষুন্ন রাখায় সভায় উপস্থিত সকলেই ‘বিলাল-সেবুল’ নেতৃত্বাধীন বর্তমান কমিটির ভূয়সী প্রশংসা করে বলেন, বাংলাদেশ সোসাইটিরও এমন ইতিহাস নেই। সভায় বক্তারা বলেন, ফ্রেন্ডস সোসাইটি কোন আঞ্চলিক সংগঠন নয়। এই সংগঠন যুক্তরাষ্ট্র প্রবাসী সকল বাংলাদেশীদের সংগঠন। ফ্রেন্ডস সোসাইটির কর্মকান্ড সকল প্রবাসীর মন জয় করেছে বলেই এর সুনাম উত্তর আমেরিকা ছাড়িয়ে বাংলাদেশেও বিরাজ করেেছ। ফলে সামাজিক কর্মকান্ডে ফ্রেন্ডস সোসাইটির দায়-দায়িত্ব আরো বেড়ে গেছে। সভায় বক্তারা আগামী বছর ফ্রেন্ডস সোসাইটির অফিস/ভবন প্রতিষ্ঠার উপর গুরুত্বারোপ করেন এবং সংগঠনটিকে আরো গতিশীল ও শক্তিশালী করতে সকল প্রবাসীর সার্বিক সহযোগিতা কামনা করেন। খবর ইউএনএ’র।
JBFS AGM-1সিটির জ্যামাইকার হিলসাইড এভিনিউস্থ কিং কাবাব রেষ্টুরেন্টে গত ২৬ ডিসেম্বর শনিবার সন্ধ্যায় অনু্িষ্ঠত ফ্রেন্ডস সোসাইটির সাধারণ সভায় সভাপতিত্ব করেন সভাপতি বিলাল আহমেদ চৌধুরী। সভা পরিচালনা করেন সাধারণ সম্পাদক সেবুল মিয়া। সভায় সংগঠনের সক্রিয় কর্মী মরহুম জসিম উদ্দিন মিঠু ও রতনকে স্মরণ করে তাদের বিদেহী আতœার শান্তি কামনা করা হয়।
সভার শুরুতে স্বাগত বক্তব্য রাখেন প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি মোহাম্মদ ফখরুল ইসলাম দেলোয়ার। তিনি সভায় উপস্থিত সকল উপদেষ্টা ও কর্মকর্তা, সদস্য ও অতিথিদের পরিচয় করিয়ে দেন। এছাড়া সভায় বাংলাদেশের মহান বিজয়ের মাসে দেশের স্বাধীনতা যুদ্ধে শহীদদের প্রতি শ্রদ্ধা জানানো হয়।
JBFS AGM-3সভায় ফ্রেন্ডস সোসাইটির উপদেষ্টা পরিষদের সদস্যদের মধ্যে দিক নির্দেশনামুলক বক্তব্য রাখেন নাসির আলী খান পল, ডা. ওয়াজেদ এ খান, মনজুর আহমেদ চৌধুরী, এবিএম ওসমান গণি, ছদরুন নূর, সালেহ আহমেদ, অধ্যাপিকা হুসনে আরা বেগম, রেজাউল করীম চৌধুরী ও এবিএম সালাহউদ্দিন আহমেদ। এছাড়া অতিথি হিসেবে শুভেচ্ছা বক্তব্য রাখেন সাবেক চেয়ারম্যান মোহাম্মদ নিছফার আলী।
JBFS AGM-4সভায় সংগঠনের সাবেক ও বর্তমান কর্মকর্তাদের মধ্যে সাবেক সভাপতি মোহাম্মদ মনির হোসেন, সাবেক সাধারণ সম্পাদক এএফ মিজবাহউজ্জামান ও গাজী গোলাম মহিউদ্দিন মিঠু, সহ সভাপতি মুক্তার হোসেন, শেখ হায়দার আলী, সৈয়দ আাতিকুল ইসলাম, সাংগঠনিক সম্পাদক এডভোকেট কামরুজ্জামান বাবু, কোষাধ্যক্ষ ইফজাল আহমেদ চৌধুরী, শিক্ষা বিষয়ক সম্পাদক কাজী এন ইসলাম, প্রচার সম্পাদক জুয়েল মিয়া, কার্যকরী পরিষদ সদস্য একেএম সফিকুল ইসলাম প্রমুখ বক্তব্য রাখেন।
সভায় ২০১৪-২০১৫ সাল অর্থাৎ এক টার্ম সফলতার সাথে দায়িত্ব পালনের পর স্বেচ্ছায় নিজ নিজ পদ ছেড়ে দিয়ে নতুন নেতৃত্বকে স্বাগত জানানোর জন্য সভাপতি বিলাল আহমেদ চৌধুরী ও সাধারণ সম্পাদক সেবুল মিয়াসহ বর্তমান কমিটির সকল কর্মকর্তাকে বিশেষভাবে ধন্যবাদ জানানো এবং প্রবাসে এটি দৃষ্টান্ত বলে উল্লেখ করা হয়। সভায় বলা হয় ‘বিলাল-সেবুল’-এর এমন সিদ্ধান্তই প্রমাণ করে যে, জ্যামাইকা বাংলাদেশ ফ্রেন্ডস সোসাইটিতে নেতৃত্বের কোন্দল নেই, ভাগাভাগি নেই, বিভক্তি নেই। সভায় কোন কোন বক্তা বলেন, ফ্রেন্ডস সোসাইটির সাথে সম্পৃক্তার জন্য নিজেরা আজ গর্বিত এবং সমাজে পরিচিত। এটি অহংকারের কথা, গৌরবের কথা। বক্তারা বলেন, তরুণ নেতৃত্ব ফখরুল ইসলাম দেলোয়ারের নেতৃত্বে স্থানীয় ‘ক্যাপ্টেন টিলি পার্ক’-এর মাঠে শুরু হওয়া ফ্রেন্ডস সোসাইটি নানান সামাজিক কর্মকান্ডের মধ্য দিয়ে আজ বটবৃক্ষে, একটি পরিবারে পরিণত হয়েছে। আজ জ্যামাইকাবাসী সহ প্রবাসের সকল বাংলাদেশী ‘ফ্রেন্ডস সোসাইটি’ নামক বটবৃক্ষের ছায়াতলে বসে সুশীতল বাতাস নিচ্ছেন। বক্তারা ফ্রেন্ডস সোসাইটির সামাজিক কর্মকান্ড বৃদ্ধি করে কমিউনিটির কণ্যাণে আরো অবদান রাখার জন্য নতুন কর্মকর্তাদের দৃষ্টি আকর্ষণ করেন।
সভায় নিউইয়র্কের জ্যামাইকায় আগামী বছর (২০১৬ ইংরেজী) অনুষ্ঠিতব্য ১৬তম উত্তর আমেরিকা নজরুল সম্মেলন-এর সদস্য সচিব মোহাম্মদ ফখরুল ইসলাম দেলোয়ারের প্রস্তাবে ‘জ্যামাইকা বাংলাদেশ ফ্রেন্ডস সোসাইটি’ কো-হোস্ট হওয়ার সিদ্ধান্ত নেয়া হয়।
সভায় বিদায়ী বক্তব্যে সভাপতি বিলাল চৌধুরী ও সেবুল মিয়া তাদের দায়িত্ব পালনে সকলের সহযোগিতার জন্য কৃতজ্ঞতা প্রকাশ এবং অতীতের মতো আগামী দিনেও ফ্রেন্ডস সোসাইটির সকল কর্মকান্ডে সার্বিক সহযোগিতা প্রদানের অঙ্গীকার করেন।
সভায় অন্যান্যের মধ্যে মোহাম্মদ হাবিবুর রহমান, গোলাম এ রকি, মোহাম্মদ মোস্তফা কামাল, নিলুফার খান, গিয়াস উদ্দিন, আরিফ বিন সালেহ, সহদেব তালুকদার, মাহমুদুর রহমান শিপু, আব্দুল হাই পারভেজ, মোহাম্মদ লিটন আহমেদ, আলী খান, হামিদুর হমান, মোহাম্মদ দেলোয়ার হোসেন প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

সোশ্যাল মিডিয়ায় খবরটি শেয়ার করুন

আপনার মন্তব্য লিখুন

About Author Information

জ্যামাইকা বাংলাদেশ ফ্রেন্ডস সোসাইটির সাধারণ সভায় ভবন প্রতিষ্ঠার সিদ্ধান্ত

প্রকাশের সময় : ০১:১৪:৫৮ পূর্বাহ্ন, মঙ্গলবার, ২৯ ডিসেম্বর ২০১৫

নিউইয়র্ক: যুক্তরাষ্ট্রে প্রবাসী বাংলাদেশীদের সুপরিচিত ও জনপ্রিয় সামাজিক সংগঠন জ্যামাইকা বাংলাদেশ ফ্রেন্ডস সোসাইটির দ্বি-বার্ষিক সাধারণ সভায় আগামী দুই বছরের (২০১৬-২০১৭) জন্য নতুন কমিটির সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদক নির্বাচিত করা হয়েছে। এই কমিটির সভাপতি নির্বাচিত হয়েছেন কমিউনিটির পরিচিত মুখ ও বিশিষ্ট রিয়ের এস্টেট ব্যবসায়ী মোহাম্মদ সাইফুল ইসলাম এবং সাধারণ সম্পাদক নির্বাচিত হয়েছেন কমিউনিটির অপর পরিচিত অ্যাক্টিভিস্ট রেজাউল আজাদ ভুইয়া। সাইফুল ইসলাম বিদায়ী কমিটির সিনিয়র সহ সভাপতি আর রেজাউল একই কমিটির যুগ্ম সাধারণ সম্পাদকের দায়িত্ব পালন করছিলেন। সভার সিদ্ধান্ত মোতাবেক সম্ভাব্য স্বল্প সময়ের মধ্যে উপদেষ্টা পরিষদ, নব নির্বাচিত সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদক আর বিদায়ী কমিটির শীর্ষ কর্মকর্তাদের যৌথ সভায় ফ্রেন্ডস সোসাইটির পূর্ণাঙ্গ কমিটি গঠন করা হবে। এছাড়া সভায় সংগঠনের আজীবন সদস্য সংগ্রহ অভিযান শুরু ও সোসাইটির অফিস/ভবন প্রতিষ্ঠার সিদ্ধান্ত নেয়া হয়।
এদিকে ফ্রেন্ডস সোসাইটির সভায় সংগঠনের ইতিহাসে চলতি বছর দেড় লাখ ডলার ব্যয়ে সফল অনুষ্ঠান আয়োজন এবং সোসাইটির ঐতিহ্য অক্ষুন্ন রাখায় সভায় উপস্থিত সকলেই ‘বিলাল-সেবুল’ নেতৃত্বাধীন বর্তমান কমিটির ভূয়সী প্রশংসা করে বলেন, বাংলাদেশ সোসাইটিরও এমন ইতিহাস নেই। সভায় বক্তারা বলেন, ফ্রেন্ডস সোসাইটি কোন আঞ্চলিক সংগঠন নয়। এই সংগঠন যুক্তরাষ্ট্র প্রবাসী সকল বাংলাদেশীদের সংগঠন। ফ্রেন্ডস সোসাইটির কর্মকান্ড সকল প্রবাসীর মন জয় করেছে বলেই এর সুনাম উত্তর আমেরিকা ছাড়িয়ে বাংলাদেশেও বিরাজ করেেছ। ফলে সামাজিক কর্মকান্ডে ফ্রেন্ডস সোসাইটির দায়-দায়িত্ব আরো বেড়ে গেছে। সভায় বক্তারা আগামী বছর ফ্রেন্ডস সোসাইটির অফিস/ভবন প্রতিষ্ঠার উপর গুরুত্বারোপ করেন এবং সংগঠনটিকে আরো গতিশীল ও শক্তিশালী করতে সকল প্রবাসীর সার্বিক সহযোগিতা কামনা করেন। খবর ইউএনএ’র।
JBFS AGM-1সিটির জ্যামাইকার হিলসাইড এভিনিউস্থ কিং কাবাব রেষ্টুরেন্টে গত ২৬ ডিসেম্বর শনিবার সন্ধ্যায় অনু্িষ্ঠত ফ্রেন্ডস সোসাইটির সাধারণ সভায় সভাপতিত্ব করেন সভাপতি বিলাল আহমেদ চৌধুরী। সভা পরিচালনা করেন সাধারণ সম্পাদক সেবুল মিয়া। সভায় সংগঠনের সক্রিয় কর্মী মরহুম জসিম উদ্দিন মিঠু ও রতনকে স্মরণ করে তাদের বিদেহী আতœার শান্তি কামনা করা হয়।
সভার শুরুতে স্বাগত বক্তব্য রাখেন প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি মোহাম্মদ ফখরুল ইসলাম দেলোয়ার। তিনি সভায় উপস্থিত সকল উপদেষ্টা ও কর্মকর্তা, সদস্য ও অতিথিদের পরিচয় করিয়ে দেন। এছাড়া সভায় বাংলাদেশের মহান বিজয়ের মাসে দেশের স্বাধীনতা যুদ্ধে শহীদদের প্রতি শ্রদ্ধা জানানো হয়।
JBFS AGM-3সভায় ফ্রেন্ডস সোসাইটির উপদেষ্টা পরিষদের সদস্যদের মধ্যে দিক নির্দেশনামুলক বক্তব্য রাখেন নাসির আলী খান পল, ডা. ওয়াজেদ এ খান, মনজুর আহমেদ চৌধুরী, এবিএম ওসমান গণি, ছদরুন নূর, সালেহ আহমেদ, অধ্যাপিকা হুসনে আরা বেগম, রেজাউল করীম চৌধুরী ও এবিএম সালাহউদ্দিন আহমেদ। এছাড়া অতিথি হিসেবে শুভেচ্ছা বক্তব্য রাখেন সাবেক চেয়ারম্যান মোহাম্মদ নিছফার আলী।
JBFS AGM-4সভায় সংগঠনের সাবেক ও বর্তমান কর্মকর্তাদের মধ্যে সাবেক সভাপতি মোহাম্মদ মনির হোসেন, সাবেক সাধারণ সম্পাদক এএফ মিজবাহউজ্জামান ও গাজী গোলাম মহিউদ্দিন মিঠু, সহ সভাপতি মুক্তার হোসেন, শেখ হায়দার আলী, সৈয়দ আাতিকুল ইসলাম, সাংগঠনিক সম্পাদক এডভোকেট কামরুজ্জামান বাবু, কোষাধ্যক্ষ ইফজাল আহমেদ চৌধুরী, শিক্ষা বিষয়ক সম্পাদক কাজী এন ইসলাম, প্রচার সম্পাদক জুয়েল মিয়া, কার্যকরী পরিষদ সদস্য একেএম সফিকুল ইসলাম প্রমুখ বক্তব্য রাখেন।
সভায় ২০১৪-২০১৫ সাল অর্থাৎ এক টার্ম সফলতার সাথে দায়িত্ব পালনের পর স্বেচ্ছায় নিজ নিজ পদ ছেড়ে দিয়ে নতুন নেতৃত্বকে স্বাগত জানানোর জন্য সভাপতি বিলাল আহমেদ চৌধুরী ও সাধারণ সম্পাদক সেবুল মিয়াসহ বর্তমান কমিটির সকল কর্মকর্তাকে বিশেষভাবে ধন্যবাদ জানানো এবং প্রবাসে এটি দৃষ্টান্ত বলে উল্লেখ করা হয়। সভায় বলা হয় ‘বিলাল-সেবুল’-এর এমন সিদ্ধান্তই প্রমাণ করে যে, জ্যামাইকা বাংলাদেশ ফ্রেন্ডস সোসাইটিতে নেতৃত্বের কোন্দল নেই, ভাগাভাগি নেই, বিভক্তি নেই। সভায় কোন কোন বক্তা বলেন, ফ্রেন্ডস সোসাইটির সাথে সম্পৃক্তার জন্য নিজেরা আজ গর্বিত এবং সমাজে পরিচিত। এটি অহংকারের কথা, গৌরবের কথা। বক্তারা বলেন, তরুণ নেতৃত্ব ফখরুল ইসলাম দেলোয়ারের নেতৃত্বে স্থানীয় ‘ক্যাপ্টেন টিলি পার্ক’-এর মাঠে শুরু হওয়া ফ্রেন্ডস সোসাইটি নানান সামাজিক কর্মকান্ডের মধ্য দিয়ে আজ বটবৃক্ষে, একটি পরিবারে পরিণত হয়েছে। আজ জ্যামাইকাবাসী সহ প্রবাসের সকল বাংলাদেশী ‘ফ্রেন্ডস সোসাইটি’ নামক বটবৃক্ষের ছায়াতলে বসে সুশীতল বাতাস নিচ্ছেন। বক্তারা ফ্রেন্ডস সোসাইটির সামাজিক কর্মকান্ড বৃদ্ধি করে কমিউনিটির কণ্যাণে আরো অবদান রাখার জন্য নতুন কর্মকর্তাদের দৃষ্টি আকর্ষণ করেন।
সভায় নিউইয়র্কের জ্যামাইকায় আগামী বছর (২০১৬ ইংরেজী) অনুষ্ঠিতব্য ১৬তম উত্তর আমেরিকা নজরুল সম্মেলন-এর সদস্য সচিব মোহাম্মদ ফখরুল ইসলাম দেলোয়ারের প্রস্তাবে ‘জ্যামাইকা বাংলাদেশ ফ্রেন্ডস সোসাইটি’ কো-হোস্ট হওয়ার সিদ্ধান্ত নেয়া হয়।
সভায় বিদায়ী বক্তব্যে সভাপতি বিলাল চৌধুরী ও সেবুল মিয়া তাদের দায়িত্ব পালনে সকলের সহযোগিতার জন্য কৃতজ্ঞতা প্রকাশ এবং অতীতের মতো আগামী দিনেও ফ্রেন্ডস সোসাইটির সকল কর্মকান্ডে সার্বিক সহযোগিতা প্রদানের অঙ্গীকার করেন।
সভায় অন্যান্যের মধ্যে মোহাম্মদ হাবিবুর রহমান, গোলাম এ রকি, মোহাম্মদ মোস্তফা কামাল, নিলুফার খান, গিয়াস উদ্দিন, আরিফ বিন সালেহ, সহদেব তালুকদার, মাহমুদুর রহমান শিপু, আব্দুল হাই পারভেজ, মোহাম্মদ লিটন আহমেদ, আলী খান, হামিদুর হমান, মোহাম্মদ দেলোয়ার হোসেন প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।