নিউইয়র্ক ০৪:২০ অপরাহ্ন, সোমবার, ২২ জুলাই ২০২৪, ৭ শ্রাবণ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
বিজ্ঞাপন :
মঙ্গলবারের পত্রিকা সাপ্তাহিক হককথা ও হককথা.কম এ আপনার প্রতিষ্ঠানের বিজ্ঞাপন দিতে যোগাযোগ করুন +1 (347) 848-3834

আটলান্টায় ছেলে আলভীকে বাঁচাতে গিয়ে মা লিপির মর্মান্তিক মৃত্যু

রিপোর্ট:
  • প্রকাশের সময় : ১২:৩২:১১ পূর্বাহ্ন, বুধবার, ১৭ ডিসেম্বর ২০১৪
  • / ১৪৮৬ বার পঠিত

আটলান্টা (জর্জিয়া): আদরের সন্তানকে বাঁচাতে গিয়ে আটলান্টায় এক মা নিজের জীবন দিয়েছেন। একটি ট্রাকের আঘাত থেকে ১২ বছর বয়সী আলভীকে বাঁচাতে গিয়ে ট্রাকের প্রচন্ড ধাক্কায় মর্মান্তিকভাবে জীবন দিয়েছেন বাংলাদেশী শামসুন নাহার লিপি।
জানা যায়, গত ১০ ডিসেম্বর সকালে আটলান্টার স্টোন মাউন্টেইনে বসবাসকারী বেলায়েত হোসেন রতন ও শামসুন নাহার লিপি দম্পতির জৈষ্ঠ্য পুত্র আলভীকে অন্যান্য দিনের মত দুরাহাম সড়কে স্কুল বাসে উঠিয়ে দেয়ার আগ মুহূর্তে এই মর্মস্পর্শী দুর্ঘটনা ঘটে। ঘটনার সময় আলভীকে স্কুল বাসে উঠিয়ে দেয়ার জন্য বাস স্টপে যাওয়ার সময় রাস্তা অতিক্রম করতে গেলে আকস্মিকভাবে একটি ট্রাক দ্রুতগতিতে আলভীর সামনে এসে পড়ে। আর সেই মুর্হূতে ছেলেটির ট্রাকের চাকায় পিষ্ট হওয়া নিশ্চিত দেখে মা দৌড়ে এসে ছেলে আলভীকে পেছন থেকে ধাক্কা দিয়ে রক্ষা করলেও লিপি নিজেকে রক্ষা করতে পারেননি। ট্রাকের প্রচন্ড ধাক্কায় শামসুন নাহার লিপি ঘটনাস্থলেই মৃত্যুর কোলে ঢলে পড়েন।
ঘটনার পর ট্রাক চালক নিজেই পুলিশ করলে সাথে সাথে পুলিশ এবং অ্যাম্বুলেন্স আসে। মারাত্মকভাবে আহত আলভীকে স্থানীয় ইউগলস্টন হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। পুলিশ জানিয়েছে, আলভী যেহেতু রাস্তা পারাপারের নির্দিষ্ট জায়গা দিয়ে রাস্তা পার হয়নি, সে জন্য পুলিশ ট্রাক ড্রাইভারকে গ্রেফতার করেনি। এদিকে শামসুন নাহার লিপির মৃত্যুর খবর স্থায়ী মিডিয়াগুলো ফলাও করে প্রচার করা হয়েছে। লিপির মৃত্যুতে পুরো বাংলাদেশী কম্যুনিটিতে শোকের ছায়া নেমে আসে।
Lipi_Atlanta-2উল্লেখ্য, রতন-লিপি দম্পত্তির দ্বিতীয় সন্তান ছয় মাসের শিশু কন্যাকে এক পরিচিত বাংলাদেশী পরিবারের কাছে রেখে বাবা রতন ছেলে আলভীর পাশে রয়েছেন। এই দম্পতির দেশের বাড়ি নারায়ণগঞ্জের আড়াই হাজার উপজেলায়।

সোশ্যাল মিডিয়ায় খবরটি শেয়ার করুন

আপনার মন্তব্য লিখুন

About Author Information

আটলান্টায় ছেলে আলভীকে বাঁচাতে গিয়ে মা লিপির মর্মান্তিক মৃত্যু

প্রকাশের সময় : ১২:৩২:১১ পূর্বাহ্ন, বুধবার, ১৭ ডিসেম্বর ২০১৪

আটলান্টা (জর্জিয়া): আদরের সন্তানকে বাঁচাতে গিয়ে আটলান্টায় এক মা নিজের জীবন দিয়েছেন। একটি ট্রাকের আঘাত থেকে ১২ বছর বয়সী আলভীকে বাঁচাতে গিয়ে ট্রাকের প্রচন্ড ধাক্কায় মর্মান্তিকভাবে জীবন দিয়েছেন বাংলাদেশী শামসুন নাহার লিপি।
জানা যায়, গত ১০ ডিসেম্বর সকালে আটলান্টার স্টোন মাউন্টেইনে বসবাসকারী বেলায়েত হোসেন রতন ও শামসুন নাহার লিপি দম্পতির জৈষ্ঠ্য পুত্র আলভীকে অন্যান্য দিনের মত দুরাহাম সড়কে স্কুল বাসে উঠিয়ে দেয়ার আগ মুহূর্তে এই মর্মস্পর্শী দুর্ঘটনা ঘটে। ঘটনার সময় আলভীকে স্কুল বাসে উঠিয়ে দেয়ার জন্য বাস স্টপে যাওয়ার সময় রাস্তা অতিক্রম করতে গেলে আকস্মিকভাবে একটি ট্রাক দ্রুতগতিতে আলভীর সামনে এসে পড়ে। আর সেই মুর্হূতে ছেলেটির ট্রাকের চাকায় পিষ্ট হওয়া নিশ্চিত দেখে মা দৌড়ে এসে ছেলে আলভীকে পেছন থেকে ধাক্কা দিয়ে রক্ষা করলেও লিপি নিজেকে রক্ষা করতে পারেননি। ট্রাকের প্রচন্ড ধাক্কায় শামসুন নাহার লিপি ঘটনাস্থলেই মৃত্যুর কোলে ঢলে পড়েন।
ঘটনার পর ট্রাক চালক নিজেই পুলিশ করলে সাথে সাথে পুলিশ এবং অ্যাম্বুলেন্স আসে। মারাত্মকভাবে আহত আলভীকে স্থানীয় ইউগলস্টন হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। পুলিশ জানিয়েছে, আলভী যেহেতু রাস্তা পারাপারের নির্দিষ্ট জায়গা দিয়ে রাস্তা পার হয়নি, সে জন্য পুলিশ ট্রাক ড্রাইভারকে গ্রেফতার করেনি। এদিকে শামসুন নাহার লিপির মৃত্যুর খবর স্থায়ী মিডিয়াগুলো ফলাও করে প্রচার করা হয়েছে। লিপির মৃত্যুতে পুরো বাংলাদেশী কম্যুনিটিতে শোকের ছায়া নেমে আসে।
Lipi_Atlanta-2উল্লেখ্য, রতন-লিপি দম্পত্তির দ্বিতীয় সন্তান ছয় মাসের শিশু কন্যাকে এক পরিচিত বাংলাদেশী পরিবারের কাছে রেখে বাবা রতন ছেলে আলভীর পাশে রয়েছেন। এই দম্পতির দেশের বাড়ি নারায়ণগঞ্জের আড়াই হাজার উপজেলায়।