আমিন-সাইফুল পরিষদের ফলাফল প্রত্যাখ্যান

সন্দ্বীপ সোসাইটির নির্বাচনে পান্না-আলাউদ্দীন পরিষদকে  বিজয়ী ঘোষণা

হককথা ডেস্ক: সন্দ্বীপ সোসাইটির নির্বাচনে পান্না- আলাউদ্দীন পরিষদ নিরংকুশ বিজয় লাভ করেছে। গত রোববার প্রতিযোগিতাপূর্ন এক নির্বাচনে আমিন-সাইফুল পরিষদের বিপরীতে পান্না-আলাউদ্দীন পরিষদ বিজয়ী ঘোষণা করে নির্বাচন কমিশন। তবে নির্বাচনে ব্যাপক অনিয়ম ও নির্বাচন কমিশনের বিরুদ্ধে পক্ষপাতের অভিযোগ এনে নির্বাচনী ফলাফলকে প্রত্যাখান করেছে আমিন-সাইফুল পরিষদ। তারা বলেছেন, প্রচন্ড শীতকে উপেক্ষা করে সন্দ্বীপবাসী তাদের পছন্দের প্রতিনিধি নির্বাচন করার যে অভিপ্রায় নির্বাচনে অংশ নিয়েছিলেন নির্বাচন কমিশনের অযোগ্যতা ও পক্ষপাতিত্বের কারণে নির্বাচনী ফলাফলে তাদের মতামতের প্রতিফলন ঘটেনি। যার প্রেক্ষিতে নির্বাচনী এজেন্ট মনিরুল ইসলাম সহ অপর দুই সদস্য নির্বাচনের ফলাফল প্রত্যাখ্যানের ঘোষণা দেন।
এদিকে নির্বাচনে বিজয়ী ঘোষিত প্যানেলের সভাপতি আব্দুল হান্নান পান্না ও সাধারণ সম্পাদক এ এসএম আলাউদ্দীন সংগঠনের স্বার্থে ব্যক্তি স্বার্থকে বিসর্জন দিয়ে সবাইকে এক সাথে কাজ করার আহ্বান জানিয়েছেন। বাংলা পত্রিকার সাথে আলাপকালে তারা বলেন, নির্বাচনে হারজিত আছেই। তবে এটাকে কেন্দ্র করে আমরা সন্দ্বীপবাসীর ঐক্যকে কোনভাবেই বিনষ্ট হতে দেবো না। এজন্য আলাপ আলোচনার মাধ্যমে বিতর্ক অবসানে আমাদের কোন ধরনের কাপর্ন্য থাকবে না।
নির্বাচন কমিশন ঘোষিত রোববারের নির্বাচনে বিজয়ীরা হচ্ছেন, সভাপতি আব্দুল হান্নান পান্না ১৪৬৮ এবং প্রতিদ্বন্দ্বী নুরুল আমিন পেয়েছেন ৯১২ ভোট।
সিনিয়র সহ সভাপতি পদে বিজয়ী মোহাম্মদ হেলাল ১২৯৫ এবং অপর প্রার্থী একে মিয়া হানিফ পেয়েছেন ৯৬৯ ভোট।
সহ সভাপতি (১) পদে মাজহারুল ইসলাম ১৩৪০ এবং অপর প্রার্থী আনোয়ার হোসেন পেয়েছেন ৮৪২ ভোট।
সহ সভাপতি (২) মোহাম্মদ কাশেম পেয়েছেন ১২৬৪ ভোট একই পদে অপর প্রার্থী মোহাম্মদ আব্দুল মান্নান পেয়েছেন ৯৪৪ ভোট।
সহ সভাপতি (৩) ফসিউল আলম পেয়েছেন ১২৪৪ ভোট এবং একই পদে অপর প্রার্থী মোহাম্মদ আজিজ উল্লাহ পেয়েছেন ৮৮২ ভোট।
সাধারণ সম্পাদক পদে এ এসএম আলাউদ্দীন পেয়েছেন ১৩০৮ ভোট এবং অপর প্রার্থী মোহাম্মদ সাইফুল ইসলাম পেয়েছেন ১০১২ ভোট।
যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মেজবাহ উদ্দীন মনির পেয়েছেন ১৩২৩ ভোট অপর প্রার্থী আরিফুর আর চৌধুরী পেয়েছেন ৯৮০ ভোট।
সাংগঠনিক সম্পাদক পদে মোহাম্মদ কে সর্দার পেয়েছেন ১৩৭৫ ভোট অপর প্রার্থী মোহাম্মদ আলমগীর হোসেন পেয়েছেন ৯০৩ ভোট।
সহ সাংগঠনিক সম্পাদক পদে মোহাম্মদ সফিকুল ইসলাম ১২৮০ ভোট এবং অপর প্রার্থী মোহাম্মদ সোহেল পেয়েছেন ৯৮৬ ভোট।
কোষাধ্যক্ষ পদে মোহাম্মদ আমজাদ হোসেন পেয়েছেন ১৩২৪ ভোট অপর প্রার্থী মোহাম্মদ আনোয়ারুল ইসলাম পেয়েছেন ৯৭২ ভোট।
সহ কোষাধ্যক্ষ রিদওয়ানুল বারী পেয়েছেন ১৩০১ অপর প্রার্থী নাসির উদ্দীন পেয়েছেন ৯৭৩ ভোট।
সমাজ কল্যাণ ও বিনোদন সম্পাদক মাঈন উদ্দীন আহমেদ আরিফ পেয়েছেন ১২৫৮ অপর প্রার্থী মোহাম্মদ আলাউদ্দীন ফারুক পেয়েছেন ৯৯৫ ভোট।
ক্রীড়া ও স্বাস্থ্য সম্পাদক পদে আহমেদ সোহেল পেয়েছেন ১৩১৫ অপর প্রার্থী নিজামুল ইসলাম সিজার পেয়েছেন ৯৭২ ভোট।
প্রশিক্ষন ও কর্মসংস্থান সম্পাদক পদে এইচ এম এস ইসলাম অরিক পেয়েছেন ১৩২৭ ভোট অপর প্রার্থী মোহাম্মদ মোসলিম উদ্দীন পেয়েছেন ৯২৩ ভোট।
দপ্তর সম্পাদক শাফায়েত হোসেন পেয়েছেন ১৩৪৬ ভোট অপর প্রার্থী ইদ্রিস আলম আলো পেয়েছেন ৯১০ ভোট।
মুলধারা ও আইন বিষয়ক সম্পাদক মাঈন উদ্দীন পেয়েছেন ১২৯২ অপর প্রার্থী মোহাম্মদ এ রাসুল ছোটন পেয়েছেন ৯৪৩ ভোট।
তথ্য ও প্রযুক্তি বিষয়ক সম্পাদক মোহাম্মদ এম উদ্দীন পেয়েছেন ১২৮৪ ভোট অপর প্রার্থী মোহাম্মদ মোক্তাদির মাওলা রুবেল পেয়েছেন ৯৮৩ ভোট।
অন্যদিকে স্বতন্দ্র সভাপতি প্রার্থী মাওলানা মোহাম্মদ এ কালাম পেয়েছেন মাত্র ২১ ভোট।
সদস্য পদে এর বিনা প্রতিদ্বন্দ্বীতায় নির্বাচিত হয়েছেন দুজন বলে জানা গেছে।(বাংলা পত্রিকা )






একই ধরনের খবর

  • বাংলাদেশ কনস্যুলেটে ডিজিটাল বাংলাদেশ দিবস পালন
  • অ্যাসেম্বলীওম্যান প্রার্থী মেরী জোবাইদার ফান্ড রেইজিং ২২ ডিসেম্বর
  • প্রজন্মের সাথে বাড়ছে দূরত্ব ॥ বাড়ছে পারিবারিক অশান্তি
  • ১৬ ডিসেম্বর মহান বিজয় দিবস : নিউইয়র্কে ব্যাপক কর্মসূচী গ্রহণ
  • নারীর ক্ষমতায়নে নারীদেরই অগ্রনী ভূমিকা রাখতে হবে
  • উমরা প্যাকেজ নিয়ে সৌদি আরব ঘুরে এলো বাংলা ট্যুর
  • নিউইয়র্কের পরিচিত মুখ আব্দুল জলিলের ইন্তেকাল
  • বিপুল উৎসাহ-উদ্দীপনায় থ্যাঙ্কস গিভিং ডে উদযাপন : ঘরে ঘরে টার্কি ভোজ পার্টি
  • Shares