যুক্তরাষ্ট্রের ৪৫তম প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প : হিলারী শিবিরে কান্নার রোল

নিউইয়র্ক: যুক্তরাষ্ট্রের ৪৫তম প্রেসিডেন্ট হতে যাচ্ছেন ধুনকুবের ডোনাল্ড ট্রাম্প। সকল চড়াই উৎরাই পার করে ৮ নভেম্বর মঙ্গলবার অনুষ্ঠিত ঐতিহাসিক এই নির্বাচনে হাড্ডাহাড্ডি লড়াইয়ে শেষ পর্যন্ত জয় পেয়েছেন রিপাবলিকান প্রার্থী ডোনাল্ড ট্রাম্প। আর এর মধ্যদিয়ে অবসান ঘটলো সকল জল্পনা-কল্পনা, নানা হিসাব-নিকাশ আর বিশ্বাস-অবিশ্বাসের। নির্বাচনী ফলাফলে পাল্টে গেলো সকল জরিপের হিসাবও। সিএনএস’র সর্বশেষ খবরে বলা হয়েছে বুধবার ভোর দুইটা পর্যন্ত ২৮৯টি ইলেক্টোরাল ভোটে এগিয়ে ছিলেন ট্রাম্প। অপরদিকে হিলারি পেয়েছেন ২১৮টি ইলেক্টোরাল ভোট। সর্বশেষ খবর পাওয়া পর্যন্ত মাত্র চার ভোটের অপেক্ষা ছিল। তবে প্রাথমিকভাবে প্রেসিডেন্ট নিবার্চিত হলেও চূড়ান্ত ফলাফলের জন্য অপেক্ষা করতে হবে অ্যারিজোনা, মিনেসোটা, উইসকনসিন এবং মিশিগান রাজ্যের ফলাফলের ওপর। এখন ট্রাম্প আর হিলারী শিবিওে চলছে জয়-পরাজয়ের হিসাব নিকাশ।
মঙ্গলবার প্রেসিডেন্ট পদ ছাড়াও যুক্তরাষ্ট্র (ইউএস) কংগ্রেসের নিম্নকক্ষ প্রতিনিধি পরিষদের ৪৩৫ আসনের সব কটিতে এবং উচ্চকক্ষ সিনেটের ১০০ আসনের মধ্যে ৩৪ আসনের নির্বাচনেও ভোট গ্রহণ অনুষ্ঠিত হয়।
এদিকে নির্বাচনে জয়ের আভাসে ট্রাম্প শিবিরে চলছে বাঁধ ভাঙা উল্লাস। মার্কিন প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে সবার মনে একটাই প্রশ্ন দুই প্রেসিডেন্ট প্রার্থী হিলারি ক্লিনটন এবং ডোনাল্ড ট্রাম্পের মধ্যে কে হচ্ছেন পরবর্তী প্রেসিডেন্ট। এদিকে রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভøাদিমির পুতিন তাৎক্ষনিকভাবে পাওয়া ট্রাম্পের জয়ের খবর ডোনাল্ড ট্রামকে তিনি অভিনন্ন জানিয়েছেন।
ফলাফলে দেখা যায়, রিপাবলিকান নিয়ন্ত্রণে থাকা প্রতিনিধি পরিষদ তাদের হাতেই থাকল। নিউইয়র্ক টাইমসের তথ্যমতে, শেষ খবর পাওয়া পর্যন্ত প্রতিনিধি পরিষদে রিপাবলিকানরা ২৩৫ আসন পেয়েছে। ডেমোক্র্যাটরা পেয়েছে ১৭৬ আসন। আর সিনেটে রিপাবলিকানরা পেয়েছে ৫১ আসন, অপরদিকে ডেমোক্র্যাটরা পেয়েছে ৪৭ আসন। বিভিন্ন সংস্থার জরিপে বলা হয়, যুক্তরাষ্ট্রের ৫৮তম প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে প্রায় ৫৪ শতাংশ ভোটার ভোট দিয়েছেন। সিএনএন বলছে, এবারের নির্বাচনে ট্রাম্প পপুলার ভোট পেয়েছেন শতকরা ৪৭.৫ ভাগ আর হিলারি ক্লিনটন পেয়েছেন ৪৭.৬ ভাগ ভোট।
হিলারি শিবিরে কান্নার রোল: এদিকে প্রেসিডেন্ট হওয়ার স্বপ্ন আর পূরণ হলনা ডেমোক্র্যাট প্রার্থী হিলারি ক্লিনটনের। ইতিহাস সৃষ্টি হলো না যুক্তরাষ্ট্রে প্রথম নারী প্রেসিডেন্ট হওয়ার। আনুষ্ঠানিক ঘোষণার অনেক আগে থেকেই ধাপে ধাপে ভোট গণনার ফল দেখে সেটা বুঝে নিয়েছিলেন হিলারির আশাবাদী সমর্থকরা। তাই পুরোটা সময় ধৈর্য ধরে থাকলেও শেষ পর্যন্ত আর ঠিক থাকতে পারলেন না তারা। ফলে প্রতিদ্বন্দ্বি ডোনাল্ড ট্রাম্পের জয়ের সম্ভাবনায় ট্রাম্প শিবিরে যখন আনন্দের সুবাতাশ আর তখন হিলারি শিবিরে কান্নার রোল।
অবশ্য ভোট গণনা শেষ হওয়ার অনেক আগেই সবাইকে সান্তনার বাণী শুনিয়েছেন হিলারি ক্লিনটন। জয়ের পাল্লা তার দিকে নামার সম্ভাবনা কমে যাচ্ছে দেখে হিলারি তার ফেসবুক পেজে ছবিসহ একটি পোস্ট লিখেন। অতি সংক্ষিপ্ত পোস্টে হিলারি লিখেছেন, ‘এই দলটির (হিলারি শিবির) গর্ব করার মতো অনেক কিছু আছে। আজ রাতে (মঙ্গলবার) যা-ই ঘটুক, সবকিছুর জন্য আপনাদের ধন্যবাদ।’
এরপরপরই হিলারির ক্যাম্পেইন ম্যানেজার জন পোডেস্টা ভোর রাত ২টার দিকে নিউইয়র্কে সমবেত দলীয় নেতা-কর্মী, সমর্থক ও শুভানুধ্যায়ীদের জানান, অনেকগুলো অঙ্গরাজ্যেই এখনো দুই প্রার্থীর ভোটের পার্থক্য হাড্ডাহাড্ডি অবস্থায়। তাই এখনই হাল ছেড়ে দেয়া হচ্ছে না। হিলারি ক্লিনটন আজ রাতে (মঙ্গলবার) কোনো বক্তব্য দেবেন না। উল্লেখ্য, এই মঞ্চ থেকেই হিলারীর ‘বিজয়ী ভাষণ’ দেয়ার কথা ছিলো। নির্বাচনের বিভিন্ন কাজে দায়িত্বরত হিলারির ইলেকশন পার্টির উদ্দেশ্যে জন বলেন, ‘আমরা এখনো ভোট গুনছি। একটা ভোটও এখানে মূল্যবান। বেশকিছু অঙ্গরাজ্যে ভোটের পরিমাণ খুব কাছাকাছি। তাই এখনো সেগুলোতে বিজয়ী নির্ধারণ করা যায়নি। তাই আজ রাতে (স্থানীয় সময় রাত ২টা) আমরা আর কিছু বলতে চাই না।’






একই ধরনের খবর

  • বুড়ো বয়সে ভিমরতি! সহকর্মীকে চুমু খেয়ে বিপদে বাইডেন
  • পরাজয়ের কারণ কোমি : হিলারি
  • পর্যালোচনা : যেকারণে হিলারির পরাজয়
  • আপনি জানেন কি? ডেমোক্রেটদের দুর্গ নিউইয়র্কে আপনার প্রতিবেশী কার পক্ষে ভোট দিয়েছেন!
  • হোয়াইট হাউসে ওবামা-ট্রাম্প প্রথম বৈঠক
  • এটা কষ্টের, এ বেদনা দীর্ঘ সময় থাকবে: নির্বাচনোত্তর ভাষণে হিলারি
  • যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট নির্বাচন আজ ৮ ডিসেম্বর মঙ্গলবার : লড়ছেন হিলারি-ট্রামসহ চার প্রার্থী : লড়াই হবে হাড্ডাহাড্ডি
  • Leave a Reply

    Your email address will not be published. Required fields are marked as *

    *

    Shares