বিভক্ত ফোবানা এগিয়ে চলছে : সবার দৃষ্টি ১৬ আগষ্ট

নিউইয়র্ক (ইউএনএ): ফেডারেশন অব বাংলাদেশীজ এসোসিয়েশন অব নর্থ আমেরিকা (ফোবানা)-এর ৩৩তম সম্মেলন বিভত্তির মধ্য দিয়ে এগিয়ে চলছে। চলতি বছরের সম্মেলন যুক্তরাষ্ট্রের লেবার যে উউকেন্ডে অর্থাৎ আগামী ৩০-৩১ আগষ্ট ও ১ সেপ্টেম্বর নিউইয়র্কে হওয়ার কথা। তবে এই সম্মেলনের প্রস্তুত বিভক্তি আকারে এগিয়ে চলছে। অতীতের বিভক্তির ধারাবাহিকতায় এবারও নিউইয়র্কের লং আইল্যান্ডস্থ নাসাও কলিসিয়ামে এবং লাগোর্ডিয়া ম্যারিয়ট হোটেলে ফোবানা সম্মেলন/কনভেনশন অনুষ্ঠিত হচ্ছে। বিভক্তির মধ্য দিয়েই এগিয়ে চলছে এর প্রস্তুতি। খবর ইউএনএ’র।
এদিকে ফোবানা সম্মেলন ঘিরে মামলা-মোকদ্দমার অবসান ঘটেনি। মামলার বাদী মীর চৌধুরী ও জাকারিয়া চৌধুরী নেতৃত্বাধীন ফোবানার পক্ষ থেকে মোহাম্মদ হোসেন খান ও কাজী সাখাওয়াত হোসেন আজম নেতৃত্বাধীন ফোবানা’র কর্মকর্তাদের বিবাদী করে দায়ের করা মামলা পরবর্তী প্রেক্ষাপটে ‘উকিল নোটিশ’ করা হয়। নির্ধারিত সময়ের মধ্যে বিবাদী পক্ষ বাদীর এই ‘উকিল নোটিশ’-এর জবাব দেওয়ার পর মাননীয় আদালত আগামী ১৬ আগষ্টের মধ্যে কেন মামলা ডিসমিস করা হবে এই মর্মে বাদীর আইনজীবি-কে আদেশ দিয়েছেন বলে সংশ্লিস্ট সূত্রে জানা গেছে। মামলায় ‘আইনগত ফ্যাকচুয়াল’-এর কারণেই আদালত ১৬ আগষ্ট নতুন তারিখ ধার্য করেছেন। ফলে সবার সৃষ্টি ১৬ আগষ্ট শুক্রবার। তবে এবিষয়ে আদালতের দোহাই দিয়ে কোন পক্ষই আপাতত: কোন বক্তব্য দিতে বা মন্তব্য করতে চাচ্ছেন না।
ফোবানা সম্মেলনের সাথে সংশ্লিষ্ট এক কর্মকর্তা নাম প্রকাশ না করার শর্তে বলেন, ১৬ আগষ্টের সিদ্ধান্তের ওপর নির্ভর করবে ফোবানার ভবিষ্যৎ। মাননীয় আদালত পক্ষে-বিপক্ষে বা উভয় পক্ষে বা সম্মেলন স্থগিত বা বন্ধ সহ যেকোন সিদ্ধান্ত দিতে পারেন। আর আদালত যে সিদ্ধান্ত দেবেন সেটাই আমাদের মানতে হবে।
অপরদিকে বিভক্তির পাশাপাশি মামলা-মোকদ্দমার মধ্য দিয়েও ফোবানার উভয় পক্ষ তাদের সম্মেলন/কনভেনশন-এর প্রস্তুতি চালিয়ে যাচ্ছে। পৃথক পৃথক আয়োজনে উভয় পক্ষেরই চলছে প্রস্তুতি সভা, অর্থ সংগ্রহ প্রভৃতি কর্মকান্ড।
উল্লেখ্য, মীর চৌধুরী ও জাকারিয়া চৌধুরী নেতৃত্বাধীন ফোবানার সম্মেলন হচ্ছে নাসাও কলিসিয়ামে। এই সম্মেলনের আয়োজক সংগঠন ড্রামা সার্কল এবং কনভেনর হচ্ছেন নার্গিস আহমেদ ও সদস্য সচিব হচ্ছেন আবীর আলমগীর।
অপরদিকে মোহাম্মদ হোসেন খান ও কাজী সাখাওয়াত হোসেন আজম নেতৃত্বাধীন ফোবানা কনভেনশন হচ্ছে লাগোর্ডিয়া ম্যারিয়ট হোটেলে। এর আয়োজন সংগঠন হচ্ছে বাংলাদেশী আমেরিকান ফ্রেন্ডশীপ সোসাইটি অব নিউইয়র্ক ইনক এবং কনভেনর হচ্ছেন শাহ নেওয়াজ ও সদস্য সচিব হচ্ছেন ফিরোজ আহমেদ।






একই ধরনের খবর

  • হাইরাম মানসেরাতকে নির্বাচিত করার আহ্বান
  • বাংলাদেশ স্পোর্টস কাউন্সিলের নতুন কমিটি ঘোষণা
  • ভবিষ্যতে কংগ্রেসে নেতৃত্ব দেবে বাংলাদেশীরা : চাক শুমার
  • ফ্রেন্ডস সোসাইটি নতুন পূর্ণাঙ্গ কমিটি ঘোষণা : আগামী দিনে নতুন কিছু উপহার দেয়ার প্রতিশ্রæতি
  • বিশ্বব্যাপী গণহত্যার বিচার দাবী
  • নিউইয়র্কে বাংলাদেশী সুপার মার্কেট সহ ৫টি বাড়ীতে অগ্নিকান্ড ॥ আহত ১৫
  • ওজনপার্কে আগুন : ৪টি বসতবাড়ীসহ সুপার মার্কেট ক্ষতিগ্রস্ত
  • রংপুর জিলা এসোসিয়েশন’র নবনির্বাচিত কমিটির অভিষিক্ত
  • Shares