ক্যালিফোর্নিয়া ও ওকলাহোমায় পৃথক বন্দুক হামলায় ৪ এশীয়সহ নিহত ৭

ছবি: সংগৃহীত
হককথা ডেস্ক: যুক্তরাষ্ট্রে পৃথক বন্দুক হামলায় চার এশীয়সহ সাত জন নিহত হয়েছেন। একটি ক্যালিফোর্নিয়া এবং আরেকটি গুলির ঘটনা ঘটেছে ওকলাহোমা অঙ্গরাজ্যে। ক্যালিফোর্নিয়ায় চারজন এবং ওকলাহোমায় তিনজন নিহত হয়েছেন। খবর ডেইলি মেইল, সিএনএন ও রয়টার্সের।
ক্যালিফোর্নিয়ায় পারিবারিক পার্টিতে বন্দুকধারীর গুলিতে চার এশীয় নিহত এবং ছয় জন আহত হয়েছেন। রোববার (১৭ নভেম্বর) রাতে ফ্রেশনো শহরে ফুটবল খেলা দেখার এক পার্টিতে এ ঘটনা ঘটেছে বলে পুলিশ জানিয়েছে। তিনজন ঘটনাস্থলে এবং হাসপাতালে নেওয়ার পর একজন মারা যান। ফ্রেশনো পুলিশের লেফটেন্যান্ট বিল ডুলে এক সংবাদ সম্মেলনে জানিয়েছেন, ইস্ট লেমোনা এভিনিউয়ের ৫৩০০ বøকের বাড়িটির পেছনের মাঠে পরিবারের সদস্য ও তাদের বন্ধুসহ ৪৫ জন ফুটবল খেলা দেখতে জড়ো হয়েছিলেন। এ সময় অজ্ঞাত এক সন্দেহভাজন বন্দুকধারী গুলি চালায়। স্থানীয় সময় রাত ৮ টার দিকে ওই গুলিবর্ষণের ঘটনা ঘটে।
স্থানীয় পুলিশের উপ-প্রধান মাইকেল রিড জানিয়েছেন, ঘটনাস্থলেই তিন ব্যক্তি মারা যান। স্থানীয় কমিউনিটি রিজিওনাল মেডিকেল সেন্টারে (সিআরএমসি) নেওয়ার পর একজনের মৃত্যু হয়। নিহতদের বয়স ২৫ থেকে ৩০ বছরের মধ্যে এবং তারা সবাই এশীয়। আহত ছয়জনের অবস্থা স্থিতিশীল এবং তারা সিআরএমসিতে চিকিৎসাধীন বলে রিড জানিয়েছেন। তিনি জানান, হামলাকারী টার্গেট করেই গুলি চালিয়েছেন। তবে কারণ খুঁজে পাওয়া যায়নি।
অপরদিকে স্থানীয় মিডিয়া জানিয়েছে, সোমবার (১৮ নভেম্বর) ওকলাহোমার ওয়ালমার্টে বন্দুকধারীর হামলায় তিনজন নিহত হয়েছেন। ওকলাহোমার হাইওয়ের পুলিশ এই তথ্য জানিয়েছে। ডানকান পুলিশ গুলির সত্যতা নিশ্চিত করেছে। তবে নিহতদের পরিচয় ও তাদের অবস্থা সম্পর্কে কিছু জানাতে পারেনি পুলিশ।
এনবিসি নিউজ-এর খবরে বলা হয়েছে, যুক্তরাষ্ট্রের ওকলাহোমায় ওয়ালমার্ট স্টোরে গুলির ঘটনায় কমপক্ষে তিনজন নিহত হয়েছে। আহত হয়েছেন কমপক্ষে ১৫ জন। স্থানীয় সময় সোমবার ওকলাহোমার ডানক্যানে ওয়ালমার্টে এ ঘটনা ঘটে।
পুলিশ জানায়, দোকানের বাইরে একটি গাড়িতে দুজন গুলিতে নিহত হয়েছে এবং তৃতীয় ব্যক্তি নিহত হয়েছে একটি পার্কিং এলাকায়। নিহতদের মধ্যে বন্দুকধারীও রয়েছে বলে পুলিশে জানিয়েছে। এ ঘটনার পর শহরের স্কুলগুলো বন্ধ হয়ে গেছে। পুলিশ ঘটনাস্থল ঘিরে রেখেছে।
উল্লেখ্য, যুক্তরাষ্ট্রে এ ধরনের বন্দুক হামলা প্রায়শই ঘটে থাকে। তবে সম্প্রতি বন্দুক হামলার ঘটনা উদ্বেগজনক হারে বৃদ্ধি পেয়েছে।






একই ধরনের খবর

  • যুক্তরাষ্ট্রের বিশ্ববিদ্যালয়ে বাড়ছে বাংলাদেশী শিক্ষার্থীর সংখ্যা : অধ্যয়নরত ৮,২৪৯
  • যুক্তরাষ্ট্রের অঙ্গরাজ্যভিত্তিক নির্বাচন-২০১৯ : প্রেসিডেন্ট নির্বাচনের আগে বড়সড় ধাক্কা খেলেন ট্রাম্প
  • ইউএস কংগ্রেস সদস্য কেটি হিল’র পদত্যাগ
  • বয়স ৭৯, খুন করেছেন ৯৩ নারীকে
  • অভিন্ন সুবিধা ও সমৃদ্ধির জন্য বাংলাদেশের সঙ্গে থাকুন : ইউএস চেম্বারস অব কমার্স আয়োজিত গোলটেবিল বৈঠকে প্রধানমন্ত্রী
  • নাইন-ইলেভেনের ১৮ বছর: কী ঘটেছিল সেদিন?
  • ৯/১১ : কী ঘটেছিল সেদিন
  • Shares